Apr 23, 2014, 9:25 am (BST)

সংবাদ শিরোনাম

খেলাধুলার সংবাদ : সেমিফাইনালের প্রথম লেগে এ্যাথলেটিকো, চেলসির কেউ জিততে পারেনি   |    আন্তর্জাতিক সংবাদ : ইউক্রেন সংকটে কেরির গভীর উদ্বেগ প্রকাশ   |    অথর্নীতি : শরীয়তপুরে গমের বাম্পার ফলন   |    বিভাগীয় সংবাদ : মনিরামপুরে জামায়াতের ১৭ নেতা আটক * বরিশালে পলিথিন বিরোধী মোবাইল কোর্টে ১১ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা   |    জাতীয় সংবাদ : সাভারে অটবির ফার্নিচার কারখানায় ভয়াবহ আগুন, আহত ১০ * অবৈধভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার চেষ্টা ॥ উখিয়ায় ২৭ জনকে আটক   |   
প্রচ্ছদ | যোগাযোগ | Print
 
 
 
আবহাওয়া
 
সূর্যোদয় ও সূর্যাস্ত
 
নামাযের সময়
 
 
 
ভারতের সেনা প্রধানকে ঘুষ দেয়ার প্রস্তাবের অভিযোগ তদন্তের নির্দেশ
 
নয়াদিল্লী, ২৬ মার্চ (বাসস/এএফপি) : ভারতের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী এ কে অ্যান্টনি দেশটির সেনা প্রধানকে ঘুষ দেয়ার প্রস্তাবের অভিযোগ তদন্ত করতে আজ সোমবার ফেডারেল তদন্তকারীদের নির্দেশ দিয়েছেন।
সামরিক সরঞ্জাম ক্রয় আদেশের জন্য একটি ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে সেনা প্রধানকে ২৮ লাখ মার্কিন ডলার ঘুষ দেয়ার প্রস্তাবের অভিযোগ করা হয়েছে।
সেনা বাহিনী প্রধান জেনারেল ভি কে সিং একটি পত্রিকাকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ অভিযোগ করেন। তার এই অভিযোগের পর সরকারের উচ্চ পর্যায়ে দুর্নীতির কেলেংকারীর ঘটনায় সরকারকে নতুন করে বিব্রতকর অবস্থার মুখে পড়তে হলো। সরকার ইতোমধ্যেই দুর্নীতি কেলেংকারীর ঘটনায় চাপের মধ্যে রয়েছে।
প্রতিরক্ষা মন্ত্রী অ্যান্টনি এই অভিযোগটিকে মারাত্মক বলে উল্লেখ করেছেন। প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের একজন মুখপাত্র জানান, কেন্দ্রীয় তদন্ত ব্যুরোকে এ ঘটনার পূর্ণাঙ্গ তদন্ত করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
আজ সোমবার প্রকাশিত দ্য হিন্দু পত্রিকায় দেয়া সাক্ষাৎকারে বলা হয়, অজ্ঞাত একটি সামরিক সরঞ্জাম সরবরাহকারী ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের পক্ষে একজন লবিস্ট ৬শ নিম্নমানের গাড়ি ক্রয় আদেশ অনুমোদনের জন্য আর্থিক সুবিধা দেয়ার প্রস্তাব করে। সেনা প্রধান সিং বলেন, এক ব্যক্তি তার কাছে এসে বলেন, ক্রয় আদেশটি অনুমোদন করে দেয়া হলে তাকে ১৪ কোটি রুপি ঘুষ দেয়া হবে।
কবে সেনা প্রধানকে ঘুষ দেয়ার প্রস্তাব দেয়া হয়েছিল তা এখনো স্পষ্ট নয়। কোন কোন মিডিয়ার খবরে বলা হয়, এটি দুবছর আগের ঘটনা।
সেনা প্রধান সিং বলেন, এ ধরনের প্রস্তাবে তিনি দুঃখ পেয়েছিলেন। সিং সে সময় এ ঘটনা প্রতিরক্ষা মন্ত্রীকে জানিয়েছিলেন। কিন্তু মন্ত্রী সে সময়ে এ ঘটনার তদন্তের নির্দেশ না দেয়ায় প্রশ্ন উত্থাপিত হয়েছে।
 
 
 
প্রচ্ছদ | যোগাযোগ | Print
সার্বিক তত্ত্বাবধানে : বাসস আই,টি বিভাগ এবং বাংলাদেশ অনলাইন লিমিটেড